শনিবার, ১৩ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

কুমিল্লায় বিএনপির সদস্য সচিবকে অবাঞ্চিত ঘোষণা

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
জানুয়ারি ৩১, ২০২৩
news-image

স্টাফ রিপোর্টার:

অর্থের বিনিময়ে কুমিল্লা ব্রাহ্মনপাড়া উপজেলা যুবদলের কমিটি গঠন করা হয়েছে। এমন অভিযোগ এনে জেলা বিএনপির সদস্য সচিব জসিম উদ্দিনকে অবাঞ্চিত ঘোষণা করেছে দলটির নেতাকর্মীরা। মঙ্গলবার বিকেলে কুমিল্লা নগরীর একটি রেস্তরায় পদবঞ্চিত নেতাকর্মীরা সংবাদ সম্মেলন করে এমন ঘোষনা দেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন ব্রাহ্মনপাড়া উপজেলা যুবদলের সাবেক সভাপতি মোঃ আবু ইউসুফ বাবুল। লিখিত বক্তব্য যুবদল নেতা বাবুল বলেন, কুমিল্লা জেলা বিএনপির সদস্য সচিব জসিম উদ্দিন আওয়ামীলীগের সুবিধাভুগী। অর্থের বিনিময়ে তিনি পছন্দের লোক নিয়ে তিনি বুড়িচং ও ব্রাহ্মনপাড়া উপজলা যুবদলের কমিটি গঠন করে তারেক রহমানের পিএস পরিচয় দানকারী সানিকে টাকা দিয়ে কেন্দ্র থেকে অনুমোদন এনেছেন। যাদের বেশীর ভাগই আওয়ামী রাজনীতির সাথে জড়িত। যারা মামলা হামলায় জর্জরিত তাদেরকে কমিটি রাখা হয় নাই।

এছাড়াও জসিম নিজে একজন সুবিধাবাদী উল্লেখ করে বিএনপি নেতা বাবুল বলেন, যখন আমরা আন্দোলন সংগ্রাম করি। আমাদের বিরুদ্ধে মামলা হয়, আমরা সরকার দলীয় ক্যাডারদের নির্যাতনের শিকার তখন জসিম উদ্দিন বিভিন্ন বিভিন্ন দেশে ভ্রমনে গিয়ে ব্যবসায়িক কার্যক্রম পরিচালনা করে। আন্দোলন শেষ হলে তিনি দেশে ফিরেন। দলের প্রতি তার কোন দরদ নেই। টাকা পেলে তিনি সব করতে পারেন। তার মতো অযোগ্য লোক দলে থাকলে দলটার জন্য অনেক ক্ষতি হয়ে যাবে। আমরা আজ থেকে কমিটি বানিজ্যে লিপ্ত থাকা জসিম উদ্দিনকে অবাঞ্চিত ঘোষণা করলাম।

আমরা আশা করবো দেশনায়ক তারেক জিয়া ও মহাসসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অচিরেই এই কমিটি বিলুপ্তি করে ত্যাগীদের নিয়ে যুবদলের কমিটি গঠন করবেন। না হয় কখনো এমন হাইব্রীড কমিটি দিয়ে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনা যাবে না। এ সময় সংবাদ সম্মেলনে উপজেলা বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের শতাধিক নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, গত ১৮ জানুয়ারি বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদলের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মামুন হাসান ও সাধারণ সম্পাদক আবদুল মোনায়েম মুন্না স্বাক্ষরিত ৫১ সদস্যের ব্রাহ্মনপাড়া উপজেলা যুবদলের কমিটি অনুমোদন দেওয়া হয়। এ কমিটি ঘোষণার পর থেকে বঞ্চিত নেতাকর্মীরা বিক্ষোভ সমাবেশ সংবাদ সম্মেলন করে তাদের দাবি দাওয়া জানান দিচ্ছেন।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন ব্রাহ্মনপাড়া উপজেলা বিএনপির সাবেক যুগ্ম সম্পাদক মাসুদ সরকার, যুবদল নেতা কাজী ইকরামুল হক, জামাল উদ্দিন, ইসরাফিল গাজী, লিকসন মিয়া, জাহাঙ্গীর আলম, সোহেল মিয়া, রমিজ মেম্বার, আলমগীর মেম্বার, শাহ জালাল, মোঃ জহিরুল ইসলাম, মাজহারুল ইসলাম ভুইয়া, জাসস নেতা আল আমিন মিয়াজী, সাইফুল, সুলতান মেম্বারসহ আরো অনেকে।

আর পড়তে পারেন