বুধবার, ১৭ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

লেভান্ডভস্কির ‘ফিফটি’তে জয় বার্সার

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০২৪
news-image

ডেস্ক রিপোর্ট:

একদিন আগেই জাভি হার্নান্দেজ বলেছিলেন— আর কোনো হোঁচট সামলানোর সামর্থ্য নেই বার্সেলোনার। তেমনই এক হোঁচট খাওয়ার পথে ছিল কাতালান ক্লাবটি। যদিও শেষ মুহূর্তের নাটকীয়তায় তাদের আর বিরূপ কিছু দেখতে হয়নি। পোল্যান্ড তারকা রবার্ট লেভান্ডভস্কির জোড়া নৈপুণ্যে তারা সেল্টা ভিগোকে ২-১ গোলে হারিয়েছে। বার্সার হয়ে এদিন লেভা গোলের ফিফটি পূর্ণ করেছেন।

গতকাল (শনিবার) রাতে প্রতিপক্ষের মাঠে ম্যাচজুড়ে একক আধিপত্য দেখিয়েছে স্প্যানিশ চ্যাম্পিয়নরা। তবুও শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত জাভি শিষ্যদের ড্রয়ের শঙ্কা নিয়ে খেলতে হয়। যোগ করা সময়ে পেনাল্টি পায় বার্সা। প্রথম দফায় ব্যর্থ পোলিশ তারকা, তবে ভুলে শট নেওয়ার আগেই গোললাইন থেকে সরে গিয়েছিলেন সেল্টা গোলরক্ষক। ফলে পুনরায় নেওয়া পেনাল্টি শটে আগের ক্ষতি পুষিয়ে নেন লেভান্ডভস্কি।

লা লিগায় আগে থেকেই রিয়াল মাদ্রিদ ও জিরোনা পেছনে ছুটছে বার্সা। সে কারণে আরও অবনতি ঠেকাতে তাদের জয় দরকার ছিল। সেই লক্ষ্যে খেলতে নেমে ম্যাচের দশম মিনিটে প্রথম সুযোগ পায় কাতালানরা। তবে ভিতর রকির পাস থেকে পাওয়া বলে লামিন ইয়ামালের বাঁ পায়ের শট গোলরক্ষক ঝাঁপিয়ে ঠেকিয়ে দেন। এরপর বার্সা গোলরক্ষক মার্ক-আন্দ্রে টের স্টেগানেরও সহজ পরীক্ষা নেয় সেল্টা। তবে তিনি তা সহজেই উতরে যান।

সমতার দিকেই আগাচ্ছিল প্রথমার্ধ। তার আগে যোগ করা সময়ে প্রথম লিড পেয়ে যায় সফরকারীরা। অবশিষ্ট সময়ে তারা কেবল ওই একটি শটই লক্ষ্যে রাখতে পেরেছিল। ইয়ামালের পাস বক্সের বাইরে প্রথম স্পর্শে নিয়ন্ত্রণে নিয়ে ভেতরে ঢুকে ডান পায়ের শটে লক্ষ্যভেদ করেন লেভা। ১-০ গোলের স্বস্তি নিয়ে বিরতিতে যায় স্প্যানিশ জায়ান্টরা।

যদিও বার্সার স্বস্তি বেশিক্ষণ টেকেনি। দ্বিতীয়ার্ধের দ্বিতীয় মিনিটেই স্বাগতিক সেল্টাকে সমতা ফেরান লাগো আসপাস। বক্সের বাইরে থেকে এই ৩৬ বছর বয়সী ফরোয়ার্ডের শট নেন। বার্সা ডিফেন্ডার জুল কুন্দের পায়ে বলটি লেগে দিক পাল্টে জালে জড়ায়। সেখানে আগেই অন্যদিকে ঝাঁপিয়ে পড়া টের স্টেগানের কিছুই করার ছিল না। অল্প সময়েই ফের লিড নিতে পারত বার্সা। ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড রাফিনহা বদলি নেমে দূরপাল্লার শট নেন। যা হাতের স্পর্শে ক্রসবারের ওপর দিয়ে পাঠিয়ে দেন সেল্টা গোলরক্ষক। রাফিনহার আরও একটি শট পরে বাধা পায় রক্ষণ দেয়ালে।

ড্র নিয়ে নির্ধারিত সময় পেরিয়ে যোগ করা মিনিটের খেলা চলতে থাকে। যার তৃতীয় মিনিটে ইয়ামাল ফাউলের শিকার হন সেল্টার বক্সে। ফলে পেনাল্টি পায় বার্সেলোনা। সেখানেই শুরু অমন নাটকীয়তা এবং তবে শেষ পর্যন্ত বার্সার হয়ে দ্বিতীয় সুযোগ কাজে লাগিয়ে জয়ের উপলক্ষ আনেন লেভা। বার্সার হয়ে চলতি লিগে সর্বোচ্চ গোল হয়ে গেল তার, ২২ ম্যাচে পোলিশ ফরোয়ার্ড ১০ গোল করেছেন।

এ নিয়ে এক ম্যাচ পর লা লিগায় জয়ের স্বাদ পেল বার্সেলোনা। ২৫ ম্যাচে ১৬ জয় ও ৬ ড্রয়ে ৫৪ পয়েন্ট নিয়ে তারা তিনে অবস্থান করছে। একটি করে ম্যাচ কম খেলে ৬১ পয়েন্ট নিয়ে রিয়াল ও ৫৬ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে জিরোনা।

আর পড়তে পারেন