Tag Archives: করেছে পুলিশ

মুঠোফোনে কথা বলতে ডেকে নিয়ে বলৎকার, শিক্ষক গ্রেফতার

নোয়াখালী প্রতিনিধি:

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে মুঠোফোনে কথা বলতে ডেকে নিয়ে ছাত্রকে (৯) বলৎকারের অভিযোগে এক মাদরাসার শিক্ষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বুধবার (২৩ আগস্ট) সকালের দিকে গ্রেফতার আসামিকে নোয়াখালী চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে সোপর্দ করা হবে। এ ঘটনায় নারীও শিশু নির্যাতন দমন আইনে অভিযুক্ত শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। এর আগে, গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে তাকে উপজেলার চরকাঁকড়া ইউনিয়নের ১নম্বর ওয়ার্ড থেকে তাকে পুলিশে সোপর্দ করে এলাকাবাসী।

গ্রেফতার মো. মিজানুর রহমান (২৮) পার্শ্ববর্তী কবিরহাট উপজেলার ঘোষবাগ ইউনিয়নের ৭নম্বর ওয়ার্ডের মনসুর আহমেদ হাজী বাড়ির জয়নাল আবেদীনের ছেলে এবং কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চরকাঁকড়া ইউনিয়নের ১ নম্বর ওয়ার্ডের লতিফিয়া কাশিমুল উলুম মাদরাসার শিক্ষক।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ভিকটিম উপজেলার লতিফিয়া কাশিমুল উলুম মাদরাসার দ্বিতীয় শ্রেণির ছাত্র।

গত ১৭ আগস্ট অভিযুক্ত শিক্ষক ভিকটিমকে তাদের বসত ঘর সংলগ্ন একটি ঘরে প্রাইভেট পড়াতে যায়। ওই সময় ভিকটিমকে তার মা ফোন করেছে বলে ডেকে নেয় শিক্ষক। এরপর ফোনে কথা বলার অজুহাতে বাথরুমে নিয়ে শিশুকে বলাৎকার করে। ঘরের মালিকের স্ত্রী বাথরুমে রক্ত দেখে জানতে চাইলে শিক্ষক জানায় তার মুখ থেকে রক্ত পড়েছে। কিন্ত এ বিষয়ে তার সন্দেহ হয়। সে বিষয়টি ভিকটিমের নানীকে জানায়। ভিকটিমের নানী জিজ্ঞাসাবাদ করলে ভিকটিম জানায় তাকে একাধিকবার বলাৎকার করেছে। কাউকে কিছু বললে তাকে হত্যার ভয় দেখায়। পরে নির্যাতিত শিশুর পরিবার মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মাদরাসায় গিয়ে এলাকাবাসীর সহযোগিতায় অভিযুক্ত শিক্ষককে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রণব চৌধুরী বলেন, এ ঘটনায় নারীও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা নেওয়া হয়েছে। ওই মামলায় তাকে গ্রেফতার দেখিয়ে নোয়াখালী চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে সোপর্দ করা হবে।

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে মাছের প্রজেক্ট থেকে রাজমিস্ত্রির মরদেহ উদ্ধার

স্টাফ রিপোর্টার:

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে জালাল আহমেদ (৪২) নামের এক রাজমিস্ত্রির লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ শনিবার সকালে উপজেলার চিওড়া ইউনিয়নের নেতড়া এলাকার স্বরাজ চৌধুরী মাছের প্রজেক্ট থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

জালাল ওই ইউনিয়নের কাপড়চতলি গ্রামের আবদুর রহমানের ছেলে। এর আগে, গত শুক্রবার সকাল থেকে তিনি নিখোঁজ ছিলেন।

জালাল আহমেদের স্ত্রী রোমানা বেগম বলেন, ‘প্রতিদিনের মতো গতকাল সকালে নাস্তা খেয়ে কাজের উদ্দেশে বের হন। ওইদিন রাতেও বাড়িতে না আসায় আমরা চিন্তিত হয়ে পড়ি। আত্মীয়-স্বজনের বাড়িতে খবর নেওয়ার পাশাপাশি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লোকজন নিখোঁজ হওয়ার খবরটি পোস্ট করা হয়। আজ সকালে লোক মারফতে জানতে পারি স্বরাজ চৌধুরী মাছের প্রজেক্টের পাশে পানিতে একটি লাশ ভাসতেছে। পরে পরিবারের লোকজন গিয়ে তার লাশটি শনাক্ত করি।’

চৌদ্দগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শুভ রঞ্জন চাকমা বলেন, ‘জালালের স্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। তার শরীরের কোথাও কোনো আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি এবং হাতের মুষ্ঠিতে কিছু কচুরলতি ছিল। কোনো অভিযোগ না থাকায় জালাল আহমেদের লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।’

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার পুকুর থেকে ১২০ বোতল বিদেশি মদ উদ্ধার

ডেস্ক রিপোর্ট:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় একটি পুকুর থেকে ১২০ বোতল বিদেশি মদ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল রোববার রাতে উপজেলার কুইয়াপানিয়া গ্রামের খোকন মিয়ার বাড়ির পেছনের একটি পুকুর থেকে এসব মদ উদ্ধার করা হয়।

মদের বোতলগুলো পাচারের উদ্দেশ্যে সাতটি প্লাস্টিকের বস্তায় ভরে পুকুরের পানিতে ডুবিয়ে রাখা হয়েছিল।

কসবা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহিউদ্দিন জানান, ‘রোববার রাতে খোকন মিয়ার বাড়িতে অভিযান চালানো হয়। সেখানে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে খোকন মিয়ার পরিবারের সদস্যরা পালিয়ে যান।

পরে তার ঘরের পেছনে পুকুরে সাতটি বস্তার ভেতর থেকে এসব বিদেশি মদ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় ৬ জনের বিরুদ্ধে মাদক আইনে মামলা হয়েছে। জড়িতদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।’