বৃহস্পতিবার, ১১ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

কুমিল্লার সদর দক্ষিণে ৪র্থ শ্রেণিতে পড়ুয়া মেয়েকে ধর্ষণ করলো বাবা

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
আগস্ট ২, ২০২২
news-image

 

ডেস্ক রিপোর্টঃ

কুমিল্লা জেলার সদর দক্ষিণ এলাকায় সোমবার সুমন মিয়া নামের এক ব্যক্তি তার ১১ বছর বয়সী মেয়েকে ধর্ষণ করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

২ বোনের বোনের মধ্যে মেয়েটি বড়। গত শনিবার (৩০ জুলাই) মেয়েটি মাদরাসা থেকে ঘরে আসলে মা বাড়িতে না থাকায় মেয়েকে ২০ টাকা দিয়ে জোড় করে ধর্ষণ করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

সোমবার সন্ধায় স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের মাধ্যমে বিষয়টি সমাধান করতে অনেকে চাইলেও মেয়ের মা কুমিল্লা সদর দক্ষিণ মডেল থানায় অভিযোগ করায় সদর দক্ষিণ মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ দেবাশীষ চৌধুরী অভিযোগের বিষয়টি গুরুত্বের সাথে দেখায় অভিযোগর দিনই সোমবার রাতে আসামীকে আটক করে কুমিল্লা আদালতে সোপর্দ করেন।

মেয়েটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য কুমিল্লা মেডিকেলে প্রেরণ করা হয়েছিল।১১ বছর বয়সী মেয়েকে ধর্ষণের ঘটনার সংবাদে কুমিল্লা জুড়ে ব্যাপক সমালোচনার ঝড় উঠেছে।মা ছকিনা(ছদ্মনাম) বলেন,আমি কুমিল্লা ইপিজেডে চাকরী করি।আমার আগের সংসারে একটি মেয়ে জন্ম হয়।ঐ স্বামীর সাথে আমার ডিভোর্স হয়ে যাওয়াই সুমনকে (২য় স্বামী) আমি বিবাহ করি।সুমনের ঘরে আমার আরেকটি কন্যা সন্তান জন্ম নেয়।আমার আগের সংসারের সন্তানটি এলাকার মাদরাসায় ৪র্থ শ্রেণিতে পড়ে।সে মাদরাসায় থাকতো আজ ঘর থেকে কিছু কাপড়চোপড় নিতে আসলে তখন এই ঘটনা ঘটে।আমি এর সুষ্ঠ বিচার চাই।

কুমিল্লা সদর দক্ষিণ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেবাশীষ চৌধুরী বলেন, ঘটনার পর পরই আমার কাছে অভিযোগ আসলে আমি দ্রুত আইনানুগ সকল কাজ শেষ করি।আসামী পলাতক থাকলে ও পরবর্তীতে খবর পেয়ে রাতের মধ্যে আসামীকে আটক করি।আজ আসামীকে আদালতে সোপর্দ করি।

আর পড়তে পারেন