বুধবার, ১৯শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

ক্যান্টনমেন্ট জেনারেল হাসপাতালের ৬ তলা ভবন বিশিষ্ট ইমারজেন্সী ও ওপিডি কমপ্লেক্সের নির্মাণ কাজের উদ্বোধন

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
ডিসেম্বর ১৬, ২০২১
news-image

স্টাফ রিপোর্টার:

কুমিল্লা ময়নামতি ক্যান্টনমেন্ট জেনারেল হাসপাতালের নব-নির্মিত ইমার্জেন্সি এন্ড ওপিডি কমপ্লেক্সের শুভ উদ্বোধন হয়েছে ।

বৃহস্পতিবার (১৬ ডিসেম্বর) সকালে উক্ত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন এরিয়া কমান্ডার কুমিল্লা এরিয়া এবং জিওসি ৩৩ পদাতিক ডিভিশন মেজর জেনারেল মোঃ জাহাঙ্গীর হারুন, এসজিপি, এনডিসি, এএফডব্লিউসি, পিএসসি ।

শুরুতেই তিনি স্বাধীনতার সূবর্ণ জয়ন্তী ও বিজয় দিবস উপলক্ষ্যে গভীর শ্রদ্ধাভরে এবং স্বকৃতজ্ঞচিত্তে স্মরণ করেন সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী, স্বাধীন বাংলাদেশের মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং স্বাধীনতা যুদ্ধে আত্মোৎসর্গকারী বীর শহীদদের। এছাড়াও তিনি বাংলাদেশের চলমান অপ্রতিরোধ্য অগ্রযাত্রা ও স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সঠিক নেতৃত্ব, দিকনির্দেশনা ও অক্লান্ত পরিশ্রমের জন্য সুগভীর শ্রদ্ধা ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন।

বাংলাদেশ সেনাবাহিনী কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত ও পরিচালিত ময়নামতি ক্যান্টনমেন্ট জেনারেল হাসপাতালটি বিগত ২০০৮ সালের ৯ সেপ্টেম্বর শুধুমাত্র ডায়াগনোষ্টিক এবং কনসালটেশন সেন্টার হিসেবে আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু করে । ২০১১ সালের ১৫ অক্টোবর ১০ শয্যা বিশিষ্ট ময়নামতি ক্যান্টনমেন্ট জেনারেল হাসপাতাল এর কার্যক্রম চালু হয় । হাসপাতালটি ২০১৬ সালে ৫০ শয্যায়, ২০১৯ সালে ৭২ শয্যায় এবং ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২১ তারিখে আইসিইউ কমপ্লেক্সের উদ্বোধন করা হয় । বর্তমানে মেডিসিন, গাইনী, সার্জারী, অর্থোপেডিক, চক্ষু, ইএনটি, বক্ষব্যধি ও শিশু রোগের আউট ডোর ও ইনডোর চিকিৎসা সুবিধার পাশাপাশি ০৩টি অত্যাধুনিক অপারেশন থিয়েটার ও ভেন্টিলেটর সুবিধাসহ মুমূর্ষ রোগীদের সব ধরনের জরুরী চিকিৎসা সুবিধা সম্বলিত আইসিইউ স্থাপন করা হয়েছে।

এছাড়াও উন্নত মানের প্যাথলজিক্যাল ল্যাব, আল্ট্রাসনোগ্রাফি, ইসিজি, এন্ডোসকপি, এক্স-রে, সিটিস্ক্যান, এমআরআইসহ সব ধরনের পরীক্ষা নিরীক্ষার সুযোগ রয়েছে। ময়নামতি ক্যান্টনমেন্ট জেনারেল হাসপাতালটিতে কুমিল্লা, বি-বাড়িয়া, চাঁদপুর, নোয়াখালী এবং লক্ষীপুর সহ অন্যান্য জেলা সমূহ হতে আগত রোগীগণ চিকিৎসা সেবার সুবিধা পেয়ে উপকৃত। যাত্রা শুরুর পর হতে হাসপাতালটি অত্র অঞ্চলের সর্বসাধারণের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় বিশেষ ভুমিকা পালন করে আসছে। ময়নামতি ক্যান্টনমেন্ট জেনারেল হাসপাতালে প্রতিদিন ১৮ জন সামরিক এবং ১১ জন বেসামরিক চিকিৎসকসহ সর্বমোট ২৯ জন বিশেষ চিকিৎসক নিয়মিত চিকিৎসা সেবা প্রদান করছেন । দেশের প্রচলিত প্রাইভেট/বেসরকারী হাসপাতাল সমূহের তুলনায় ময়নামতি ক্যান্টনমেন্ট জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা ব্যয় তুলনামূলক ভাবে কম হওয়ায় রোগীগণ খুব স্বাচ্ছন্দ্যের সাথে চিকিৎসা সেবা গ্রহণ করেন। আর্থিক সামর্থ্যের কথা বিবেচনা করে রোগীদের চিকিৎসা সেবায় বিশেষ মূল্য ছাড় এবং রোগী এ্যাডেনডেন্টগণের জন্য এ্যাটেনডেন্ট হোস্টেলের ব্যবস্থা রয়েছে।

এই হাসপাতালের ৬ তলা ভবন বিশিষ্ট ইমারজেন্সী ও ওপিডি কমপ্লেক্স এর নির্মাণ কাজের আজকের এই শুভ উদ্বোধনের মাধ্যমে ভবিষ্যতে এই হাসপাতাল কুমিল্লা এরিয়ার সাধারণ জনগণের সুচিকিৎসায় উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রাখবে বলে এরিয়া কমান্ডার কুমিল্লা এরিয়া এবং ৩৩ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন ময়নামতি ক্যান্টনমেন্ট জেনারেল হাসপাতালের চেয়ারম্যান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো: শাহীন ইকবাল, এএফডিব্লিউসি, পিএসসিসহ সেনানিবাসের সামরিক উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা।

আর পড়তে পারেন