Tag Archives: সুপ্রীম কোর্টের আপিল বিভাগের অ্যাডভোকেট মনোনীত হওয়ায় মন্টু ভাইকে অভিনন্দন

সুপ্রীম কোর্টের আপিল বিভাগের অ্যাডভোকেট মনোনীত হওয়ায় মন্টু ভাইকে অভিনন্দন

সুপ্রীম কোর্টের আপিল বিভাগের অ্যাডভোকেট মনোনীত হওয়ায় মন্টু ভাইকে অভিনন্দন

 

ইউসুফ পাটোয়ারী লিংকন, কাতার থেকেঃ

বাংলাদেশ অ্যাথলেটিকস ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক বাংলাদেশের সাবেক সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল বিশিষ্ট ক্রীড়া সংগঠক ও রাজনীতিবিদ অ্যাডভোকেট আব্দুর রকিব (মন্টু) বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টের আপিল বিভাগের অ্যাডভোকেট মনোনীত হওয়ায় প্রাণঢালা অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়েছেন কাতার বঙ্গবন্ধু পরিষদের ভাইচ প্রেসিডেন্ট কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মোশারফ হোসেন নয়ন।

আব্দুর রকিব মন্টু সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জের মাইজগাঁও ইউনিয়নের নিজামপুর গ্রামের বাসিন্দা প্রয়াত কৃতি অ্যাথলেট বশির আলীর তৃতীয় ছেলে। সিলেটে তাঁদের পরিবার অ্যাথলেট পরিবার হিসেবে পরিচিত।

আব্দুর রকিব মন্টু আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সিলেট-৩ আসনে (দক্ষিণ সুরমা-ফেঞ্চুগঞ্জ-বালাগঞ্জ) বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী। সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল থাকাকালে বঙ্গবন্ধু হত্যা মামলা, জাতীয় চার নেতা হত্যা এবং যুদ্ধাপরাধীদের বিচারসহ অনেক উল্লেখযোগ্য মামলায় লড়েছেন। দক্ষিণ সুরমা-ফেঞ্চুগঞ্জবাসীর সাথে মন্টু ভাইয়ের নিবিড় সম্পর্ক রয়েছে। তাদের সুখে-দুঃখে সর্বদা পাশে ছিলেন ভবিষ্যতেও থাকবেন। আমার বিশ্বাস আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দেশ নেত্রী সেখ হাসিনা সিলেট ৩ আসনে অ্যাডভোকেট আব্দুর রকিব মন্টু ভাইকে নমিনেশন দিয়ে দক্ষিণ সুরমা-ফেঞ্চুগঞ্জবাসীর পাশে থাকার সুযোগ করে দিবেন।

আব্দুর রকিব মন্টু এশিয়ান অ্যাথলেটিকস অ্যাসোসিয়েশনের লিগ্যাল কমিশনের মেম্বার, সাফের জয়েন্ট সেক্রেটারি ও বাংলাদেশ অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের কার্যকরী সদস্য। সাবেক জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ের এ কৃতি খেলোয়াড় অ্যাথলেটিকস, ফুটবল, ভলিবলে জেলা, বিভাগ ও জাতীয় চ্যাম্পিয়ন। অসংখ্যবার স্বর্ণ পদক বিজয়ী মন্টু ১৯৮৬ সালে পোলভল্টে জাতীয় রেকর্ড গড়েন (১১ফুট ৯ইঞ্চি)। ১৯৯৩ সালে বুয়েট মাঠে অনুষ্ঠিত জাতীয় অ্যাথলেটিকস প্রতিযোগিতায় পোলভল্ট ও বর্শা নিক্ষেপে স্বর্ণপদক বিজয়ী হন। সিলেটের কৃতি এ সন্তান বিজেএমসির হয়ে ১৯৯২, ১৯৯৬ ও ২০০০ সালে বাংলাদেশ গেমসে অংশগ্রহণ করে কৃতিত্বের স্বাক্ষর রাখেন। তিনি ফুটবলে প্রতিভা অন্বেষণ কর্মসূচিতে সিলেটের একমাত্র খেলোয়াড় হিসেবে নির্বাচিত হন। কৃতি ফুটবলার মন্টু পরে দেশে-বিদেশে নানা টুর্নামেন্টে অংশ নেন। ঢাকা প্রথম বিভাগ ফুটবল লীগে রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস সোসাইটি ও সাধারণ বিমা ক্লাবের পক্ষে খেলেন।