শনিবার, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

চৌদ্দগ্রামে জোট মহাজোটের ১৩ জনের দলীয় মনোনয়ন সংগ্রহ

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
নভেম্বর ১৪, ২০১৮
news-image

স্টাফ রিপোর্টার ঃ

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে বহুল আলোচিত ও দেশের হেভিওয়েট আসন হিসেবে খ্যাত কুমিল্লা-১১ (চৌদ্দগ্রাম) আসনে মনোনয়ন প্রত্যাশী হিসেবে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ, বিএনপি ও জাতীয় পার্টির অন্তত ১২ জন প্রার্থী দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন। গত মঙ্গলবার (১৩ নভেম্বর) সন্ধ্যা পর্যন্ত মনোনয়ন প্রত্যাশীরা মনোনয়ণ সংগ্রহ করেছেন বলে নিশ্চিত করেছে সংশ্লিষ্ট দলের বিভিন্ন সূত্র। দলীয় মনোনয়ন সংগ্রহকারীর তালিকায় সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ও বর্তমান ছাত্রদল নেতার নামও রয়েছে। এক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি বিএনপি’র ৬জন প্রার্থী দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন। তবে বিভিন্ন সূত্রে নিশ্চিত করে এ আসনের হেভিওয়েট প্রার্থী বর্তমান রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক ও জামায়াত দলীয় সাবেক সাংসদ আব্দুল্লাহ মোঃ তাহেরই এ আসনের মুল প্রতিদ্বন্ধী।

আ’লীগের দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহকারীরা হলো;- রেলপথ মন্ত্রনালয়ের মন্ত্রী ও কুমিল্লা দক্ষিন জেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক, ৩বারের নির্বাচিত সংসদ সদস্য মুজিবুল হক মুজিব, বেলজিয়াম আওয়ামী লীগের সভাপতি বজলুর রশিদ ভুলু, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ন সাধারন সম্পাদক ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় উপকমিটির সাবেক সহ-সম্পাদক জসিম উদ্দিন।

দলীয় মনোনয়ন ফরম বিতরণের ২য় দিনে বিএনপি থেকে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন, কুমিল্লা দক্ষিন জেলা বিএনপি’র সহ-সভাপতি কাজী নাছিমুল হক, ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপি’র প্রচার সম্পাদক ভিপি মোঃ হানিফ, চৌদ্দগ্রাম উপজেলা বিএনপি’র আহবায়ক কামরুল হুদা, পৌর বিএনপি’র আহবায়ক জিএম তাহের পলাশী, উপজেলা বিএনপি’র সিনিয়র যুগ্ন আহবায়ক সাজেদুর রহমান মোল্লা হিরণ, কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সাবেক সহ-সভাপতি নিয়াজ মাখদুম মাছুম বিল্লাহ, সাবেক উপজেলা বিএনপি নেতা ও সাবেক সাংসদ শামছুদ্দিনের ভাতিজা ই¯্রাফিল আতিক।

এছাড়াও জাতীয় পার্টি (এরশাদ) থেকে দলীয় মনোননয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন কেন্দ্রীয় ভাইস প্রেসিডেন্ট এইচএনএম শফিকুর রহমান, উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি ও বিশিষ্ট শিল্পপতি আলহাজ্ব খায়েজ আহম্মদ ভূঁইয়া, পৌর জাতীয় পার্টির সভাপতি রফিকুল ইসলাম।

এদিকে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ ও জমাদানকে কেন্দ্র করে সংশ্লিষ্ট দলের নেতাকর্মীদের মাঝে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার সৃষ্টি হয়েছে। গত ১০ বছর নির্বাচনের বাইরে থাকায় বিরোধী জোটের নেতাকর্মীদের মাঝেই উৎসাহ উদ্দীপনা বেশি লক্ষ করা গেছে। প্রত্যেকটি দলের একাধিক প্রার্থীর দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করায় বাজার-ঘাটে চায়ের চুমুকের আড্ডায় সরব আলোচনা শুরু হয়েছে। তবে নিজ নিজ দলীয় প্রার্থীর পক্ষে-বিপক্ষে সবচেয়ে বেশি প্রচার ও সমালোচনা দেখা গেছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ‘ফেসবুক’ এ। কর্মী-সমর্থকরা দলীয় প্রতীকসহ নিজ দলীয় ও পছন্দের প্রার্থীর পক্ষে প্রচারের পাশাপাশি তুলে ধরছেন বিপরীত প্রার্থীর অযোগ্যতা।

আর পড়তে পারেন