মঙ্গলবার, ৬ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

নাঙ্গলকোটে বাদির বিরুদ্ধে আসামীর মায়ের সাজানো মামলা করার অভিযোগ

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
সেপ্টেম্বর ২৮, ২০১৯
news-image

স্টাফ রিপোর্টারঃ
কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার বক্সগন্জ ইউনিয়নে হত্যা চেষ্টা মামলার বাদী ও ভিকটিমের বিরুদ্ধে আসামীর মায়ের সাজানো মামলা দায়েরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় এলাকায় তোলপাড় সৃষ্টি হয়।

অনুসন্ধানে জানা যায়, বক্সগন্জ ইউপির মদনপুর গ্রামের মৃত. ফয়েজ আহাম্মদের ছেলে মামলার ১ নং স্বাক্ষী ও ভিকটিম মোঃ গোলাম কবির বাদলকে গত ১৪ সেপ্টেম্বর রাত সাড়ে ৯ টার দিকে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে আহত করে। স্থানীয়রা উদ্ধার করে নাঙ্গলকোট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে, অবস্থার অবনতি ঘটলে কুমিল্লা মেডিকেল সেন্টার হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের কুমিল্লা জেনারেল হাসপাতালে প্রেরণ করেন। এ ঘটনায় আহতের ভাই গোলাম হোসেন বাদী হয়ে গত ১৭ সেপ্টেম্বর ওই গ্রামের বড়বাড়ীর মৃত.গাজিউল হক ভূঁইয়ার ছেলে খলিলুর রহমান ভূঁইয়া ও দেলোয়ার হোসেনের ছেলে নুরুল আলম লিটনকে আসামী করে নাঙ্গলকোট থানায় মামলা দায়ের করেন।

এ ঘটনায় ক্ষিপ্ত হয়ে খলিলুর রহমান ভূঁইয়ার ভাই মোঃ মঈনুল হোসেনের স্ত্রী শান্তি আক্তারকে মারধরের অভিযোগে খলিলের মা লুৎফর নাহারকে বাদী করে ২১ সেপ্টেম্বর বাড়ীতে একটি মিথ্যা ঘটনা দেখিয়ে গত ২৩ সেপ্টেম্বর নাঙ্গলকোট থানায় মামলার ভিকটিম গোলাম কবির বাদল, তার ছেলে মোঃ সাগর ও মামলার বাদী গোলাম হোসেনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন।

স্থানীয় রশিদ ভূঁইয়া,ওমর আহাম্মদ কিরণ, স্থানীয় মসজিদের ইমাম মাওলানা রবিউল আলম,মাওলানা আতাউর রহমান,কাজী সফিক জানান, ২১ সেপ্টেম্বর মদনপুর গ্রামে কোন মারামারীর ঘটনা ঘটেনি।

নাঙ্গলকোট থানার ওসি মোঃ নজরুল ইসলাম পিপিএম বলেন, উভয় পক্ষের মামলা তদন্ত করে ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।

আর পড়তে পারেন