Tag Archives: সেগওয়ার্কের বাংলাদেশ ব্লেন্ডিং সেন্টারের প্রথমবর্ষপূর্তি উদযাপন

সেগওয়ার্কের বাংলাদেশ ব্লেন্ডিং সেন্টারের প্রথমবর্ষপূর্তি উদযাপন

ডেস্ক রিপোর্ট:

বাংলাদেশে নিজেদের অত্যাধুনিক ব্লেন্ডিং সেন্টারের এক বছর পূর্তি উদযাপন করছে সেগওয়ার্ক বাংলাদেশ। দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় প্যাকেজিং অ্যাপ্লিকেশন ও লেবেলের জন্য প্রিন্টিংইংক ও কোটিংয়ের অন্যতম প্রধান সরবরাহকারী এই প্রতিষ্ঠানটি ২০২১ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে এই ব্লেন্ডিং সেন্টারটি চালু করে। এর ফলে কোম্পানিটি তার গ্রাহকদের উন্নত সেগওয়ার্ক মানের টলুইন-মুক্ত প্যাকেজিংইংক সরবরাহ করতে সক্ষম হয়, যা বাংলাদেশে তাদের ব্যবসাকে আরও সম্প্রসারিত করতে সাহায্য করেছে। শীর্ষস্থানীয় বহুজাতিক ও প্রধান দেশীয় ব্র্যান্ডগুলোর সাথে সম্মিলিতভাবে কাজ করার মাধ্যমে কোম্পানিটির এই সেন্টার তাদের কার্যক্রমের প্রথম বছরেই ব্রেক-ইভেন পয়েন্টে পৌঁছেছে।

সেগওয়ার্ক বাংলাদেশের ব্লেন্ডিং সেন্টারটি নারায়ণগঞ্জের মেঘনা অর্থনৈতিক অঞ্চলে অবস্থিত। বৈশ্বিক নিয়ন্ত্রক সংস্থাও ব্র্যান্ডের সত্ত্বাধিকারীদের সকল নির্দেশনা মেনে এই সেন্টারের সব ধরনের কালি উৎপাদিত হয়। এর বার্ষিক উৎপাদন ক্ষমতা ৩,৬০০ মেট্রিকটন। কার্যক্রম শুরুর পর থেকেই বাংলাদেশে প্রতিষ্ঠানটির লোকবল বাড়ানোর কার্যক্রম চলমান রয়েছে, যাতে গ্রাহকদের ক্রমবর্ধমান চাহিদা মেটানো সম্ভব হয়।

টলুইন-মুক্ত কালি উৎপাদনের উদ্যোগের মাধ্যমে সেগওয়ার্ক বাংলাদেশ কালি নিরাপত্তা বিষয়ে দেশব্যাপী সচেতনতা গড়ে তুলতে চায়। বিশেষত খাদ্য প্যাকেজিং উৎপাদনে অনিরাপদ উপাদানযুক্ত বিষাক্ত প্রিন্টিং ইংক ব্যবহারের কারণে স্বাস্থ্যের ওপর কী নেতিবাচক প্রভাব পড়তে পারে, তা তুলে ধরাই তাদের লক্ষ্য। বাংলাদেশে শেয়ার আরও বাড়ানোর পরিকল্পনা করছে সেগওয়ার্ক। এছাড়া সুইস অর্ডিন্যান্স ও নেসলে গাইডলাইনের মতো বৈশ্বিক নিরাপদ খাদ্য প্যাকেজিংয়ের মান নিশ্চিত করে সম্পূর্ণ এশিয়া অঞ্চলে নিজেদের সম্প্রসারণ ঘটানোও তাদের পরিকল্পনার অংশ।

সেগওয়ার্ক বাংলাদেশের কান্ট্রি হেড অংশুমান মুখার্জি বলেন, “নিরাপত্তার বিষয়টিকে সেগওয়ার্ক সবসময় সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে এসেছে। মানুষের স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটাতে আমরা দৃঢ় প্রতিজ্ঞ। স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করতে খাদ্য প্যাকেজিংয়ের জন্য ব্যবহৃত প্যাকেজিং উপাদানের মান বাড়ানো গুরুত্বপূর্ণ।আর এই জন্য প্রয়োজন নিয়ম মাফিক টলুইন-মুক্ত কালি সিস্টেম প্রদান এবং বাংলাদেশের খাদ্য প্যাকেজিং খাতকে বৈশ্বিকমানের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ করে তোলা। একই সাথে, আমাদের নেতৃত্বের অবস্থানকেও শক্তিশালী করে তুলতে হবে। ইতিবাচক বিষয়টি হলো সমগ্র শিল্পই এখন একসাথে টলুইন-মুক্তকালি নিয়ে কাজ করছে। কালিশিল্পকে স্বাস্থ্যের জন্য নিরাপদ প্যাকেজিং ইকোসিস্টেমের দিকে নিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে এটি প্রথম পদক্ষেপ।”

সেগওয়ার্কের একটি শক্তিশালী বৈশ্বিক উৎপাদন ও পরিষেবা নেটওয়ার্ক রয়েছে। প্রায় দুই শতাব্দী ধরে নিয়মিতভাবে বাংলাদেশের গ্রাহকদের উন্নতমানের পণ্য সরবরাহ করে আসছে প্রতিষ্ঠানটি। গ্রাহকদের সেবাপ্রদানের ব্যাপারে কোম্পানিটি সবসময় জোর দিয়ে এসেছে। গ্রাহকদের আস্থার কারণে সেগওয়ার্ক গ্রাহকদের সাথে দীর্ঘমেয়াদী সম্পর্ক তৈরি করতে সক্ষম হয়েছে। টলুইন-মুক্তকালি উৎপাদনের মাধ্যমে সেগওয়ার্ক দেশীয় গ্রাহকদের নিরাপদ প্যাকেজিং তৈরিতে সাহায্য করছে। পাশাপাশি, কোম্পানিটি সাসটেইনেবিলিটি ও প্যাকেজিং সার্কুলারিটি নিশ্চিত করতেও প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।তাই পণ্য উৎপাদনের জন্য পরিবেশ বান্ধব ও টেকসই কাঁচামাল ব্যবহার করার বিষয়েও কোম্পানিটি সচেতন।