রবিবার, ২১শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

আ’লীগের ইফতার পন্ডের ঘটনায় দাউদকান্দি উপজেলা ছাত্রলীগকে কারণ দর্শানোর নোটিশ

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
জুন ১৯, ২০১৭
news-image

ইমতিয়াজ আহমেদ জিতুঃ
দাউদকান্দি উপজেলা ছাত্রলীগের পাল্টা কর্মসূচীর কারণে নির্ধারিত স্থানে কুমিল্লা উত্তর জেলা আ’লীগের ইফতার মাহফিল করতে না পারার ঘটনায় দাউদকান্দি উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তারিকুল ইসলাম নয়ন ও সাধারণ সম্পাদক সালাউদ্দিন সরকারকে সাত দিনের মধ্যে কারণ দর্শানোর নোটিশ দিয়েছে কুমিল্লা (উত্তর) জেলা ছাত্রলীগ।

সোমবার (১৯ জুন) সোমবার সন্ধ্যায় কুমিল্লা উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আবু কাউছার অনিক ও সাধারন সম্পাদক ফরহাদ আহম্মেদ ফকির স্বাক্ষরিত এক নোটিশের মাধ্যমে উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি-সাধারণ সম্পাদককে কারণ দর্শানোর চিঠি পাঠানো হয়।

ওই কারণ দর্শানোর নোটিশে উল্লেখ করা হয়, ১৭ জুন দাউদকান্দি উপজেলা ছাত্রলীগ কোন পূর্ব ঘোষণা ব্যতিত ও কুমিল্লা উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সাথে কোন আলোচনা না করেই কুমিল্লা উত্তর জেলা আ’লীগের পূর্ব নির্ধারিত ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠানে আরেকটি ইফতার মাহফিল করার ঘোষণা দেয়। ফলে পুলিশ বন্ধন কমিউনিটি সেন্টারে সকল ধরণের অনুষ্ঠান বাতিল করে। যার কারণে নির্ধারিত স্থানে ইফতার মাহফিল করতে পারেনি কুমিল্লা উত্তর জেলা আ’লীগ।

নোটিশে আরো উল্লেখ করা হয়, কি কারণে, কাদের ইন্ধনে ও কোন অপশক্তির প্ররোচণায় দাউদকান্দি উপজেলা ছাত্রলীগ দলীয় শৃঙ্খলা ও মূলনীতি ভঙ্গ করে অভিভাবক সংগঠন কুমিল্লা উত্তর জেলা আওয়ামীলীগের সাথে সাংঘর্ষিক কর্মসূচী পালন করেছেন সেই বিষয়ে আগামি ৭ দিনের মধ্যে কারণ দর্শানোর জন্য নির্দেশ দেয়া হল, অন্যথায় আপনাদের বিরুদ্ধে শৃঙ্খলা ভঙ্গের দায়ে দলীয় প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এ ব্যাপারে দাউদকান্দি উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তারিকুল ইসলাম নয়ন জানান, তারা শোকজের চিঠি পেয়ে জবাব দেবেন বলে জানান।

কুমিল্লা উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আবু কাউছার অনিক কারণ দর্শানোর নোটিশ প্রেরণের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

উল্লেখ্য যে, শনিবার (১৭ জানুয়ারী) বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন ও অলিম্পিক এসোসিয়েশনের সহ-সভাপতি বাদল রায় এর রোগ মুক্তি কামনায় দোয়া ও ইফতার মাহফিলটি দাউদকান্দি উপজেলা ছাত্রলীগের পাল্টা কর্মসূচির কারণে নির্ধারিত স্থানে ইফতার মাহফিল না করে গৌরীপুর ইউনিয়ন আ’লীগ কার্যালয়ে ইফতার করে উত্তর জেলা আ’লীগ।

পরে কুমিল্লা উত্তর সাংগঠনিক জেলার প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি অধ্যাপক আলী আশরাফ এমপি বলেন, ছাত্রলীগ হলো আ’লীগের সহযোগি সংগঠন। তারা কিভাবে পাল্টা কর্মসূচি দেয়, যার কারনে খুপরি ঘরে বসে ইফতার ও দোয়া মাহফিল করতে হচ্ছে । কাদের ইন্দনে ছাত্রলীগ এসব করছে। আর যার জন্য আমরা দোয়া করতে একত্রিত হয়েছি সে তো দাউদকান্দিরই সন্তান যার চিকিৎসার দায়িত্ব নিয়েছেন আ’লীগ সভনেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজে।

এমপি আশরাফ আরো জেলার সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে ভৎসনা করে বলেন, আপনারাতো অনেক বড় নেতা হয়ে গেছেন, বড় বড় গাড়ি দিয়ে চলাফেরা করেন ,ক্ষমতায় থেকেই যদি আপনাদের এই অবস্থা হয়, আর একটু পিছলে গেলেতো খুজেই পাওয়া যাবেনা। এসকল কর্মকান্ড কাদের ইন্দনে হচ্ছে, কারা করাচ্ছে তিনি প্রধানমন্ত্রীকে লিখিত আকারে জানানোর জন্য সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে বলেন।

উল্লেখ্য, গত ৬ জুন কুমিল্লা উত্তর জেলা আ’লীগের সিনিয়র যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক সাবেক কৃতি ফুটবলার বাদল রায় মস্তিস্কে রক্তক্ষরণজনিত কারণে অসুস্থ্য হয়ে রাজধানীর স্কয়ার হসপিটালে ভর্তি হন। পরে চিকিৎসকদের পরামর্শে এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে উন্নত চিকিৎসার জন্য ৭ জুন সন্ধ্যায় এয়ার এ্যাম্বুলেন্সে তাকে সিঙ্গাপুরে পাঠানো হয়েছে।

আর পড়তে পারেন